২৬শে জানুয়ারি, ২০২০ ইং | ১২ই মাঘ, ১৪২৬ বঙ্গাব্দ | সকাল ৭:৪২

কুমারখালীতে জাসদের নির্বাচনী জনসভায় বক্তব্য দিলেন মাননীয় তথ্য মন্রী হাসানুল হক ইনু

আজ শনিবার উপজেলার বাস টার্মিনাল চত্বরে জাতীয় সমাজ তান্ত্রিক দল ( জাসদ) এর নির্বাচনী জনসভা অনুষ্ঠিত হয়। জনসভায় প্রধান অতিথি হিসাবে উপস্থিত ছিলেন জাতীয় সমাজ তান্ত্রিক দলের সভাপতি ও মাননীয় তথ্য মন্ত্রী হাসানুল হক ইনু।
বিশেষ অতিথি ছিলেন বীর মুক্তিযোদ্ধা আব্দুল মতিন মিয়া, গাজী শফি উদ্দিন মোল্লা, ওবায়দুর রহমান চুন্নু, আফরোজা হক রিনা,আজিজুর রহমান,বীর মুক্তিযোদ্ধা আব্দুল গণি, বীর মুক্তিযোদ্ধা সাইফুদ্দিন মাষ্টার, বীর মুক্তিযোদ্ধা শামছুল আলম পিন্টু, আব্দুল আলিম স্বপন, সৈয়দ সাইফুল কনক,কাজী সালমা সুলতানা,শরিফুল কবির স্বপন প্রমুখ।

 

আসন্ন একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনকে সামনে রেখে ১৪ দলীয় জোট প্রার্থী হিসাবে কুষ্টিয়া -৪ কুমারখালী – খোকসা আসনে মনোনয়ন প্রত্যাশী জাতীয় সমাজতান্ত্রিক দলের কেন্দ্রীয় কার্যকরী কমিটির যুগ্ন সাধারণ সম্পাদক রোকনুজ্জামান রোকনকে মহাজোটের মনোনয়নের প্রত্যাশায় জনসভা অনুষ্ঠিত হয়। বক্তারা বলেন নির্বাচন বানচালের চক্রান্ত রুখে দাঁড়াও গণতন্ত্র ও উন্নয়ের ধারা অব্যাহত রাখো বক্তব্য রাখেন।

 

প্রধান অতিথি হাসানুল হক ইনু তার বক্তব্য বলেন আমি ঐক্য ফ্রন্টের প্রধান ডঃ কামাল হোসেনকে বিনয়ের সাথে ৫ টি প্রশ্ন করতে চাই রাজবন্দীর সংজ্ঞা কি? রাজবন্দীর তালিকা কোথায়? নিরপেক্ষ ব্যক্তি খোঁজার পদ্ধতি কি? আর নিরপেক্ষ নির্দলীয় ব্যাক্তি দিয়ে প্রধানমন্ত্রী বানানোর সুযোগ সংবিধানের কোন পাতায় কোন লাইনে লেখা আছে। সেনাবাহিনীকে বিচারের ক্ষমতায় যাবার বিধান কোন গণতন্ত্রের, পৃথিবীর কোন আইনের শাসনে এই বিষয়টা আছে। তিনি বলেন যার হাতে নল তার হাতে বিচারকি ক্ষমতা দেয়া যায়না তাহলে দেশ থাকেনা।

 

তিনি কুষ্টিয়া -৪ কুমারখালী – খোকসা আসনে রোকনুজ্জামান রোকন কে মনোনয়ন দেবার দাবী জানান।
উক্ত জনসভায় জাতীয় সমাজতান্ত্রিক দলের কেন্দ্রীয় এবং তৃনমুল পর্যায়ের নেতা কর্মীসহ জনসাধারণের একাংশ উপস্থিত ছিলেন।