২৬শে জানুয়ারি, ২০২০ ইং | ১২ই মাঘ, ১৪২৬ বঙ্গাব্দ | সকাল ৭:৩৩

মিলনের মতো আমাদের একটু ভালোবাসায় একটু সহযোগীতায় সন্তান পরিবারহীন অসহায় অসুস্থ বৃদ্ধ ব্যক্তির জীবনের শেষ দিন গুলো হতে পারে একটু আরামদায়ক

কুমারখালী মিজানুর রহমান মিলন দীর্ঘ কয়েক বছর যাবত অসহায় অসুস্থ বৃদ্ধ/বৃদ্ধা ব্যক্তিদের সেবা। অসহায় অসুস্থ বৃদ্ধ/বৃদ্ধা ব্যক্তিদের আশ্রয় সেবা ও পরিচর্যা করেছেন।

বর্তমানে আগ্রকুন্ডু এলাকায় বেশ কয়েকজন অসহায় অসুস্থ বৃদ্ধওবৃদ্ধা ব্যক্তি ঐখানে আশ্রয় দিয়েছেন মিলন। সেই সাথে আশ্রয় জন অসহায় অসুস্থ বৃদ্ধ/বৃদ্ধাদের জন্য বাসস্থান, কিছু কিছু সময় খাদ্য, চিকিৎসা,বস্ত্র, বিনোদন সহ অন্যান্য সকল সুযোগ সুবিধা দিয়েছেন।

এই সকল অসহায় বৃদ্ধ/বৃদ্ধাদের পরিবার পরিজন নেই, এদের কেহ থাকতো রাস্তায় , কেউ বা বস্তির কুঁড়ে ঘরে। এরা বিভিন্ন বার্ধক্য জনিত কঠিন রোগে আক্রান্ত। আমরা মনে করি এই সকল বৃদ্ধ/বৃদ্ধাকে প্রতিপালন করা আমার/আমাদের সকলের দায়িত্ব।
বৃদ্ধ বয়সে মানুষের জীবনে কঠিন সময় পার করতে হয়ে, এই সময় যদি পরিবার সন্তান অভিভাবক না থাকে, সে অসুস্থ হয়ে পরে তাহলে জীবন যন্ত্রনাদায়ক হয়ে উঠে। সেই যন্ত্রনা কষ্ট সহয়োগিতা কমতে পারে এবং কিছু অসহায় অসুস্থ বৃদ্ধদের শেষ দিন গুলো একটু আরামদায়ক হতে পারে।

 

আসুন পরিবার পরিজনহীন বৃদ্ধ অসহায় অসুস্থ মানুষের জন্য খাদ্য, বস্ত্র, বাসস্থান এবং বিনোদন সহ অসহায় রাস্তায় পরে থাকা মানুষের পাশে মিলনের মতো আমরাও সবাই দাড়াই।

 

মিলন নিজে এসে দেখে অসহায় বৃদ্ধদের সাথে কথা বলে বুঝে তার পরে (একটু) সামান্য সহযোগিতা করেন।